রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ০৯:০৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
প্রস্তাবিত বাজেটে জনগণের জীবনযাত্রার উন্নয়নে প্রাধান্য দেয়া হয়েছে মৌলভীবাজারে বন্যায় ৪৫০টি গ্রাম প্লাবিত: খোলা হয়েছে ৯৮টি আশ্রয় কেন্দ্র সুনামগঞ্জ জেলার বন্যা উপদ্রুত এলাকা পরিদর্শনে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী রংপুরের বাজারে উঠতে শুরু করেছে সুস্বাদু হাঁড়িভাঙা আম মাদারীপুরে ডিবি পুলিশের জালে ৫৫০ পিচ ইয়াবা সহ আটক ৩ জন ফরিদপুরে ভুয়া ম্যাজিস্ট্রেটকে আটক ঈদে ঘরমুখো মানুষের হয়রানী ও টিকেট কালোবাজারী বন্ধে পুলিশ ও র‌্যাবের সাব-কন্ট্রোল রুম চালু চাঁপাইনবাবগঞ্জে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় ও দোয়া মাহফিল নড়াইলে মোটরসাইকেল-ট্রাক মুখোমুখি সংঘর্ষে স্কুলছাত্র নিহত আরোহী গুরুতর আহত ফরিদপুরে নির্মাণাধীন ভবন থেকে পড়ে শ্রমিকের মৃত্যু

চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় মালিকের নিকট উদ্ধারকৃত মোবাইল সহ নগদ টাকা হস্তান্তর করেন ওসি আবু জিহাদ

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ১২ নভেম্বর, ২০২০
  • ৭৮ Time View

হাফিজুর রহমান স্টাফ রিপোর্টার : চুয়াডাঙ্গা সদর থানা এলাকাসহ এলাকার বাইরে বিভিন্ন স্থান থেকে হারিয়ে যাওয়া, চুরি হওয়া বিভিন্ন ব্র্যান্ডের মোবাইল সংক্রান্তে এবং বিকাশ থেকে টাকা চুরি হওয়া সংক্রান্তে চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় ভুক্তভোগীরা বিভিন্ন সময়ে জিডি করে। এসব জিডির বিষয়ে ভুক্তভোগীদের অবস্থা বিবেচনায় চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম এর নির্দেশনার আলোকে চুয়াডাঙ্গা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি আবু জিহাদ ফখরুল আলম খান এর সর্বাধিক গুরুত্বারোপ করে চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় কর্মরত চৌকস অফিসার, এসআই শামীম হাসান কে দায়িত্ব দেন। এসআই শামীম হাসান এসব চুরি ও হারিয়ে যাওয়া জিডি তদন্তকালে সর্বমোট ১০ (দশটি) মোবাইল উদ্ধারসহ বিকাশ থেকে মিসিং হওয়া নগদ ১৬০০০/= টাকা উদ্ধার করেন। বৃহস্পতিবার ১২ নভেম্বর সকাল সাড়ে ১১ টার সময় প্রকৃত মালিকের নিকট উদ্ধারকৃত মোবাইল এবং নগদ টাকা হস্তান্তর করেন চুয়াডাঙ্গা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি আবু জিহাদ ফখরুল আলম খান। উল্লেখ্য যে, উদ্ধারকৃত মোবাইলের মধ্যে একটি হারিয়ে যাওয়া মোবাইল সংক্রান্তে চাঁদাবাজির মামলা হয়েছে। হারিয়ে যাওয়ার পর এই মোবাইলটি যার হস্তগত হয়েছিল সে সহ তার সহযোগীরা সাধারণ মানুষের দুর্বলতার সুযোগ নিয়ে তাদেরকে জিম্মি করে ব্যাপক চাঁদাবাজি শুরু করে। ইতিমধ্যে তাদেরকে গ্রেপ্তার করে বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। সুতরাং মোবাইল হারিয়ে যাওয়া নিছক কোন খেলার বিষয় নয়। আপনার হারিয়ে যাওয়া মোবাইল এবং সিম অপরাধীরা ব্যবহার করে অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড ঘটালে তার দায়দায়িত্ব কিছুটা আপনাকেও বহন করতে হবে যদি না আইনানুগ পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়। এই মোবাইলটির মালিক বিগত তিন মাস পূর্বে মেহেরপুর সদর থানায় তার হারিয়ে যাওয়ার বিষয়টি জিডি ভূক্ত করেছিল। বিধায় তিনি এ যাত্রায় হয়রানির হাত থেকে বেঁচে যান। সকলকে এ বিষয়ে সচেতন ও সতর্ক হওয়ার জন্য অনুরোধ করা হল। নিম্নে সে সকল সৌভাগ্যবানদের তালিকা দেয়া হলো যাদের মোবাইল এবং টাকা হারিয়ে গিয়েছিল এবং আবার তা ফিরে পেলঃ বিকাশঃ মোঃ এরশাদ, ১৬০০০/- টাকা। ১.রাজিব রায়হান- ওয়ান প্লাস ৭প্রো। ২.খাজা উদ্দীন- ওপ্পো, ৩.দোস্ত মোহাম্মদ- স্যামসাং, ৪. মোঃ রাফিদ – ওপ্পো, ৫.সুজন আহমেদ -রেডমি, ৬.তৌহিদুল ইসলাম – রেডমি, ৭.টিপু সুলতান- রেডমি, ৮. মোঃ জাকির- স্যামসাং ৯. মশিম উদ্দিন- স্যামসাং, ১০. মোঃ মিরাজ- হুয়াওয়েই

ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category