বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০৩:৪২ পূর্বাহ্ন

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন গোপালগঞ্জ-০৩ আসনে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা

 স্টাফ রিপোর্টার, গোপালগঞ্জ
  • Update Time : সোমবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ১৮১ Time View

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গোপালগঞ্জ-০৩ আসনে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা করা হয়েছে।

এছাড়া আরো ৪ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা করা হলে বাকী ৩ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষনা করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা হওয়ায় স্থানীয় নেতাকর্মীরা আনন্দিত। আগামী নির্বাচনে টানা ৪বার প্রধানমন্ত্রী করার লক্ষ্যে কাজ করবেন তারা।

অন্যদিকে বাকী প্রার্থীরা অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের দাবী জানালেও বাতিল হওয়া প্রার্থীরা আপিল করবেন। জানাগেছে, গোপালগঞ্জ-০৩ আসন থেকে টানা ৭ বার সংসদ সদস্য ও তিনবার প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হয়েছে শেখ হাসিনা।

এবারের দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে টানা ৮বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার লক্ষ্যে মনোনয়নপত্র জমা দেন প্রধানমন্ত্রী। আজ মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাইয়ের শেষ দিনে গোপালগঞ্জ-৩ আসন থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষনা দেন জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা।

বৈধ ঘোষনা হওয়ার পর থেকে প্রধানমন্ত্রীর নির্বাচনী এলাকা টুঙ্গিপাড়া-কোটালীপাড়া উপজেলার নেতার্মীদের মাঝে আনন্দে বন্যা বইছে। এ আসন থেকে ন্যাশনাল পিলস পার্টির শেখ আবুল কালাম, গণ ফ্রন্টের সৈয়দা লিমা হাসান, বাংলাদেশ সুপ্রীম পার্টির এম নিজাম উদ্দিন লস্কর ও জাকের পার্টির মাহাবুর মোল্যার মনোনয়নপত্রও বৈধ ঘোষনা করা হয়।

এছাড়া আয়কর রিটার্ন জমা না দেয়া, হলফনামায় তথ্য গোপন ও ১ শতাংশ ভোটের স্বাক্ষর না মেলার কারণে বাংলাদেশ কংগ্রেসের মো: সাহিদুল ইসলাম, জাতীয় পার্টির শিশির চৌধুরী ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মো: কামাল হোসেনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। বৈধ প্রার্থীরা অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন চাইলেও বাতিল হওয়া প্রার্থীরা নির্বাচন কমিশনে আপিল করবেন।

গোপালগঞ্জ-০৩ আসনের ন্যাশনাল পিলস পার্টির প্রার্থী শেখ আবুল কালাম বলেন, আমার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা করা হয়েছে। আমি আশা করবো নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু হবে। এদেশের উন্নয়ন অব্যাহত রাখান জন্য একটি সুষ্ঠু নির্বাচন প্রয়োজন। নির্বাচন ছাড়া সরকার পরিবর্তন করা সম্ভব নয়।

অপর প্রার্থী জাকের পার্টির মাহাবুর মোল্যা বলেন, জাকের পার্টি একটি আদবের পার্টি, জাকের পার্টি মেহনতী মানুষের পার্টি, জাকের পার্টি একটি ইসলামিক পার্টি। ইসলামের জন্য যা যা করার দরকার আমরা তাই করবো।

মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়ায় জাতীয় পার্টির প্রার্থী শিশির চৌধুরী বলেন, আয়কর রিটার্ন জমা না দেয়ার কারনে আমার মনোনয়নপত্রটি বাতিল করা হয়েছে। মনোয়নপত্র ঠিক রাখতে আয়কর রিটার্ন জমা দেয়ার কাজ শুরু করেছি।

এছাড়া আমি নির্বাচন কমিশনেও আপিল করবো। কোটালীপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক শেখ আয়নাল হোসেন জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা করা হয়েছে, এতে আমরা আনন্দিত।

কেননা প্রধানমন্ত্রী প্রতিবার এখান থেকে নির্বাচন করে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। আমরা এবারো প্রধানমন্ত্রীকে বিপুল ভোটের ব্যবধানে জীয় করতে কাজ করে যাচ্ছি। জেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক জি এম সাহাব উদ্দিন আজম বলেন, আমার নেতাকর্মীরা আনন্দিত।

আগামী ৭ জানুয়ারী কোটালীপাড়া-টুঙ্গিপাড়ার মানুষ ভোট দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে প্রতিনিধি নির্বাচিত করবে। আমরা নেতাকর্মীরা প্রস্তুত রয়েছি নির্বাচনী কর্মকান্ড সঠিকভাবে করার জন্য। জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মাহাবুব আলী খান বলেন, মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা করারয় আমরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে স্বাগত জানাচ্ছি। এছাড়া আরো ৪টি মনোনয়নপত্র বৈধ হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চান সকল দলের অংশগ্রহনে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হোক।

গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগ ইতিমধ্যে ৭ জানুয়ারীর নির্বাচনকে সমানে রেখে আরো ২টি আসনের প্রার্থী শেখ ফজলুল করিম সেলিম ও মুহাম্মদ ফারুক খানের পক্ষে কাজ করার জন্য সংগঠনিকভাবে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্বাচনী এলাকার উন্নয়ন প্রতিনিধি মো: শহীদ উল্লা খন্দকার বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর মনোনয়নপত্র বৈধ হওয়ায় আমরা সন্তুষ্ট।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আমরা শুভেচ্ছা জানাই। আমরা সকলে প্রস্তুত আচারণবিধি মেনে নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর জন্য কাজ করবো। যাতে ভোটররা উৎসবমুখোর পরিবেশের মধ্যে দিয়ে ভোট দিতে কেন্দ্র আসে। জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক কাজী মাহবুবুল আলম বলেন, গোপালগঞ্জ-০৩ আসনে মোট ৮ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছিলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ ০৫ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ও তিনজনের বাতিল করা হয়েছে। তারা নির্বাচন কমিশনে আপিল করতে পারবেন। তিনি আরো বলেন, জেলার তিনটি আসনে ২২জন প্রার্থী মনোনয়পত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে ১৬ জনের মনোনয়নপত্র বৈধ ও ৬ জনের বাতিল করা হয়েছে।

( সবার আগে সব খবর, সঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে পেতে  ফলো করুন আমাদের X (Twitter), Facebook,এবং Youtube,
পেজ )

ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category